অপরিকল্পিত রাস্তা খোঁড়াখুঁড়ি,উন্নয়ন সাথে দুর্ভোগ

মিরপুরের সড়কগুলোর অবস্থা এমনিতেই বেহাল। তার সঙ্গে যোগ হয়েছে ওয়াসার পাইপ বসানোর জন্য অপরিকল্পিতভাবে রাস্তা খোঁড়াখুড়ি, সাথে মেট্রো রেলের কাজ। এ কারণে তীব্র যানজটে পড়তে হচ্ছে মিরপুরবাসীকে। শুকনো অবস্থায় প্রচণ্ড ধুলা আর বৃষ্টি হলে জলাবদ্ধতা– এতে জনভোগান্তি আরো তীব্র হচ্ছে।

মিরপুরবাসীর অভিযোগ, বাসা থেকে গন্তব্যের উদ্দেশ্যে বেরিয়ে নির্দিষ্ট সময়ে পৌঁছানো যাচ্ছে না। আজ এ রাস্তা বন্ধ তো, কাল অন্য রাস্তা। অলিগলিও বাদ যাচ্ছে না খোঁড়াখুঁড়ি থেকে।

অবশ্য, ওয়াসা কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলে জানা যায়, বর্ষা মৌসুমে যাতে সড়কে পানি না জমে সে জন্যই তাদের আগাম এ ব্যবস্থা । তখন আর সাধারণ মানুষকে ভোগান্তি পোহাতে হবে না।

মিরপুর ১০ নম্বর এলাকার বাসিন্দা আলী হোসেন জানান, গত দুই মাস ধরে কয়েক দফা খোঁড়াখুঁড়ি করা হয়েছে। এখন আবার খোঁড়াখুঁড়ি চলছে মিরপুর দিয়ে প্রতিদিন অসংখ্য যানবাহন ও হাজার হাজার মানুষ চলাচল করে। রাস্তা খোঁড়াখুঁড়ি করার কারণে যানবাহন চলাচল মারাত্মকভাবে ব্যাহত হচ্ছে।

এলাকাবাসীর সাথে কথা বলে আরও জানা যায়, খুঁড়ে রাখা রাস্তাগুলোতে প্রায় সময় বাস, সিএনজি পড়ে যাচ্ছে এতে করে হতাহতের ঘটনা ঘটছে। জনগণের নিরাপত্তার কথা বিবেচনা না করেই রাস্তা খুঁড়ে রাখার ফলে এসব দুর্ঘটনা ঘটছে। মানুষের চলাচল এর জন্য নিরাপদ ব্যবস্থা করেই রাস্তা খোঁড়া উচিত।

যাদের সুবিধার কথা মাথায় রেখে এসব রাস্তা খুঁড়ে উন্নয়নমূলক কাজ করা হয় তারাই যদি ভোগান্তিতে পড়ে এবং দুর্ঘটনার শিকার হয়, তাহলে উপকারের চেয়ে ক্ষতিটাই বেশি হয়ে যায়।

 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।